১৩৭ কোটি টাকার চোরাচালান পণ্য-মাদক জব্দ

0

নিউজ ডেস্ক: জুলাই মাসে অভিযান চালিয়ে ১৩৭ কোটি ৩০ লাখ ৮৮ হাজার টাকার চোরাচালান পণ্য ও মাদকদ্রব্য জব্দ করার কথা জানিয়েছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)। দেশের সীমান্ত এলাকাসহ অন্যান্য স্থানে অভিযান চালিয়ে এসব চোরাচালান পণ্য, অস্ত্র, গোলাবারুদ ও মাদকদ্রব্য জব্দ করে বিজিবি।

মঙ্গলবার (২ আগস্ট) বিজিবির জনসংযোগ কর্মকর্তা মো. শরিফুল ইসলাম এ তথ্য জানিয়েছেন।

তিনি বলেন, জব্দকৃত মাদকের মধ্যে রয়েছে ১১ লাখ ২৬২ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট, ১২ কেজি ৪০০ গ্রাম ক্রিস্টাল মেথ আইস, ৩ কেজি ১৪৭ গ্রাম হেরোইন, ৩১ হাজার ১৭৪ বোতল ফেনসিডিল, ১৪ হাজার ৬৩৩ বোতল বিদেশি মদ, ৪ হাজার ৭২১ ক্যান বিয়ার, ৩৪৪ লিটার বাংলা মদ, ২ হাজার ৫৩৮ কেজি গাঁজা, ৪ লাখ ১৬ হাজার ৩০১ প্যাকেট বিড়ি ও সিগারেট, ১৯ হাজার ২৭২টি নেশাজাতীয় ইনজেকশন, ৬ হাজার ৭১৪টি সিরাপ, ৫৩৬ কেজি তামাক পাতা, ১ হাজার বোতল এমকেডিল/কফিডিল, ৪ লাখ ৩০ হাজার ৪১৪ পিস বিভিন্ন প্রকার ওষুধ, ১৬ হাজার ৬৯৫টি অ্যানেগ্রা/সেনেগ্রা ট্যাবলেট এবং ৭৭ হাজার ৮০০টি অন্যান্য ট্যাবলেট।

জব্দকৃত অন্যান্য চোরাচালান দ্রব্যের মধ্যে রয়েছে ৫৮২.৬৮ গ্রাম স্বর্ণ, ২৬ কেজি রূপা, ১ লাখ ৭৫ হাজার ৬৪৬টি কসমেটিকস সামগ্রী, ৩ হাজার ৮১৪টি ইমিটেশন গহনা, ১০ হাজার ৭৬টি শাড়ি, ১ হাজার ৩৯৭টি থ্রিপিস/শার্টপিস/চাদর/কম্বল, ১ হাজার ৯২টি তৈরি পোশাক, ১ হাজার ২৭ ঘনফুট কাঠ, ১ হাজার ৮১৬ ঘনফুট পাথর, ৮ হাজার ৩৫৯ কেজি চা পাতা, ১ লাখ ৩১ হাজার ৭০০ কেজি কয়লা, ৪৪১ কেজি কারেন্ট জাল, ১৫টি কষ্টি পাথরের মূর্তি, ৫টি ট্রাক/কাভার্ডভ্যান, ৫টি প্রাইভেটকার/মাইক্রোবাস, ৬টি পিকআপ, ৩২টি সিএনজি/ইজিবাইক এবং ৭০টি মোটরসাইকেল।

উদ্ধার করা অস্ত্রের মধ্যে রয়েছে ৬টি পিস্তল, ৭টি রাইফেল, ১০টি বন্দুক, ১টি গান, ৫টি ম্যাগজিন, ১টি মর্টাল শেল, ১টি রাইফেলের ব্যারেল, ৩১টি খালি খোসা এবং ২৮ রাউন্ড গুলি।

এছাড়াও সীমান্তে বিজিবির অভিযানে ইয়াবাসহ বিভিন্ন প্রকার মাদক পাচার ও অন্যান্য চোরাচালানে জড়িত থাকার অভিযোগে ২৬০ জনকে এবং অবৈধভাবে সীমান্ত অতিক্রমের দায়ে ৩৬২ জন বাংলাদেশি নাগরিক ও ২৩ জন ভারতীয় নাগরিককে আটকের পর তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে