জামায়াতের মধ্যে একাত্তরের ঘাতকের মানসিকতা রয়ে গেছে–রাসিক মেয়র লিটন

0

রাজশাহী প্রতিনিধি : জামায়াতের নেতাকর্মীদের মধ্যে একাত্তরের ঘাতকের মানসিকতা রয়ে গেছে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও রাজশাহী সিটি মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন।

১৪ ডিসেম্বর বুধবার শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি ও রাজশাহী নগরীর শ্রীরামপুর বদ্ধভূমি স্মৃতিসৌধে শ্রদ্ধা জানানো শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এ মন্তব্য করেন তিনি।

খায়রুজ্জামান লিটন আওয়ামী লীগের নেতাকর্মী ও সিটি করপোরেশনের কাউন্সিলর ও কর্মকর্তা কর্মচারিদের সঙ্গে নিয়ে বেলা ১১টার দিকে প্রথমে নগরের সিএন্ডবি মোড়ে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান। পরে তিনি শ্রীরামপুর বাবলা বন বদ্ধভূমি স্মৃতিসৌধে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানান।

১৩ ডিসেমবর মঙ্গলবার রাজশাহীতে জামায়াতের ঝটিকা মিছিল থেকে ছোঁড়া ইটে ২ পুলিশ সদশ্য আহতের বিষয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, জামায়াতের রাজনৈতিক নিবন্ধন বাতিল হয়েছে; ভিন্ন নামে তারা আসার চেষ্টা করছে। কিন্তু যে নামে আসুক না কেন তাদের সেই মানুষিকতা; একাত্তরের সেই ঘাতকের ভূমিকা ও মানুষিকতা সেটি পাল্টায় নি। তারা সে জায়গায় রয়েছে। এখনো তারা ঝটিকা মিছিল, চোরাগুপ্ত হামলা চালাচ্ছে। তাদের বিষয়ে সরকার সজাগ রয়েছে।

তিনি আরো বলেন, ৭৫ পরবর্তি সময়ে মুক্তিযোদ্ধের প্রকৃত ইতিহাস বিকৃতি করার চেষ্টা করা হয়েছে। আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পর যুক্তিযোদ্ধের ইতিহাস দেশের মানুষ জানার সুযোগ পেয়েছে।

এছাড়া যুক্তযোদ্ধাদের তালিকা চুড়ান্ত হয়েছে। সেটি প্রকাশও হবে। এছাড়াও রাজাকার বা যুদ্ধাপরাধীদের বিচার চলমান রয়েছে। তাদের তালিকাও প্রকাশের প্রক্রিয়া চালছে। এছাড়াও জিয়ার রহমানের খেতাব বাতিলের বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন বলে জানান ক্ষমতাসীন দলের কেন্দ্রীয় এই নেতা।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে