গলায় ফাঁস লাগিয়ে এইচএসসি পরীক্ষার্থীর আত্মহত্যা

0

নিউজ ডেস্ক: নওগাঁর নিয়ামতপুর উপজেলার সদর ইউনিয়নের তেঘরিয়া গ্রামে গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেছেন এইচএসসি পরীক্ষার্থী নাজির হোসেন (১৯)। আজ রোববার সকাল ৬টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। মৃত নাজির হোসেন ওই গ্রামের লতিফের ছেলে।

মৃতের বাবা লতিফ বলেন, ‘আমার ছেলে বদমেজাজি ও মানসিক সমস্যায় ভুগছিল। আজ থেকে তাঁর এইচএসসি পরীক্ষা শুরু হবে। তাই গতকাল শনিবার রাতে পড়াশোনা শেষ করে ঘুমিয়ে পড়ে। আজ সকালে আমার ছেলে ঘুম থেকে ওঠার আগেই আমি খেতে চলে যাই। পরে সকাল ৭টার দিকে এক প্রতিবেশী আমাকে দ্রুত বাড়িতে আসতে বলেন। সন্দেহ হলে দ্রুত বাড়িতে এসে দেখি আমার ছেলে আর নেই। পরে থানার পুলিশ এসে মরদেহ উদ্ধার করে।’

মৃতের মা বলেন, ‘কত আশা নিয়ে ছেলেটাক লালন-পালন করছিলাম। আজ এইচএসসি পরীক্ষার জন্য প্রস্তুতিও নিয়েছিল। কিন্তু কপালে নেই। সকালে ফজরের নামাজ পড়তে গিয়ে ছেলে আর বাড়িতে ফিরে আসেনি। পরে প্রতিবেশীদের ডাক-চিৎকারে বাইরে গিয়ে দেখি কবরস্থানের আমগাছের সঙ্গে আমার ছেলে গলায় ফাঁস লাগানো অবস্থায় ঝুলে আছে।

এ বিষয়ে নিয়ামতপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হ‌ুমায়ূন কবির বলেন, মরদেহ উদ্ধার করে থানায় আনা হয়েছে। পরে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হবে। তবে কী কারণে এই আত্মহত্যার ঘটনা ঘটেছে তা এখনো জানা যায়নি। এ ঘটনায় মৃতের বাবা একটি অপমৃত্যুর মামলা দায়ের করেছেন।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে